৫-৭ বছরের মধ্যে দেশে শতভাগ ঘরে এলপি গ্যাসেই রান্না হবে

বসুন্ধরা এলপি গ্যাসের পরিবেশক সম্মেলনে আহমেদ আকবর সোহবান

বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহান বলেছেন, আমরা এলপি গ্যাসের যাত্রা শুরু করি কারণ, আমাদের দেশের সম্পদ প্রাকৃতিক গ্যাসকে যেনো সংরক্ষণ করা যায়। বিশ্বের আর কোথাও প্রাকৃতিক গ্যাস দিয়ে রান্নাবান্না হয় না। আমি আশা করি, আগামী ৫ থেকে ৭ বছরের মধ্যে আমাদের দেশে শতভাগ ঘরে এলপি গ্যাস দিয়েই রান্নাবান্না হবে।

আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় (আইসিসিবি) তে বসুন্ধরা এলপি গ্যাসের পরিবেশক সম্মেলন ‘স্বর্ণালী দিন’ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি। অনুষ্ঠানে বসুন্ধরা গ্রুপের কর্মকর্তারা, ঢাকা, সিলেট, খুলনা ও বরিশাল বিভাগ থেকে আগত পনেরো শতাধিক পরিবেশক ও তাদের পরিবারের সদস্যরা অংশ নেন।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফিয়াত সোবহান ও সাফওয়ান সোবহান। সম্মেলনে সেরা পরিবেশকসহ (২০১৭-২০১৮) অন্য বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহান।

আহমেদ আকবর সোবহান বলেন, আজ আমরা আন্তর্জাতিক সুপারব্রান্ড হিসেবে স্বীকৃত। এই কৃতিত্ব আপনাদেরই। আমি নিজেকে ধন্য মনে করি আপনাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত হতে পেরে। আপনাদের সহযোগিতায় আমরা যেমন এক নম্বর হয়েছি তেমনি আপনাদের সঙ্গে নিয়েই শক্তিশালী এক অর্থনীতির দেশ গড়ে তুলবো। ব্যবসায়ীরাই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন এবং অর্থনৈতিক পরিধির আরও ব্যাপকতা বাড়াবেন বলে আমি বিশ্বাস করি।

অনুষ্ঠানটির সভাপতিত্ব এবং সার্বিক পরিচালনা ও তত্ত্বাবধান করেন বসুন্ধরা এলপি গ্যাস লিমিটেডের হেড অব মার্কেটিং অ্যান্ড সেলস, মীর টি আই ফারুক রিজভি। তিনি মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তা ও পরিবেশকদের সঙ্গে সু-সম্পর্ক বজায় রাখার মধ্য দিয়ে বিপণন ব্যবস্থা আরও শক্তিশালী করার আহ্বান জানান।

এ প্রসঙ্গে মীর টি আই ফারুক রিজভি বলেন, যারা দীর্ঘদিন ধরে বসুন্ধরা গ্রুপের সঙ্গে ব্যবসা করে আসছেন তারা অবশ্যই জানেন শুধু ব্যবসা নয়, সবার সঙ্গে সুদৃঢ় সম্পর্ক স্থাপনে বসুন্ধরা বদ্ধপরিকর। পরিবেশকদের সব ধরনের সমস্যা সমাধানে বসুন্ধরা গ্রুপ আন্তরিকভাবে কাজ করে আসছে এবং ভবিষ্যতেও করবে।

পরিবেশকরা তাদের পরিবারসহ উপস্থিত হওয়ার পাশাপাশি বিভিন্ন বিনোদনমূলক আয়োজনে অংশ নেন। তাদের অংশগ্রহণে এ পরিবেশক সম্মেলন এক আনন্দঘন পারিবারিক মিলনমেলায় পরিণত হয়। বাড়তি আনন্দ হিসেবে যোগ দেন জনপ্রিয় চিত্রনায়ক ইমন, চিত্রনায়ক রোশান, চিত্রনায়িকা ও টিভি অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা, টিভি অভিনেত্রী ও মডেল মিম চৌধুরী, টিভি অভিনেত্রী হুমায়রা হিমু, চিত্রনায়িকা জলী, সঙ্গীতশিল্পী লিজা, বিশিষ্ট টিভি অভিনেতা সিদ্দিকুর রহমান।

সেই সঙ্গে বিনোদনমূলক গান, গ্রুপ ড্যান্স পারফরম্যান্স, কৌতুক পরিবেশনা, ডিজে শো ও র‌্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হয়।

Share this:
Share this page via Email Share this page via Stumble Upon Share this page via Digg this Share this page via Facebook Share this page via Twitter